নেই ফ্যান, নেই বিছানা, চাদর পর্যন্ত, মাটিতে মাদুর পেতেই রাত কাটাতে হচ্ছে রিয়া কে, জেলে তার অবস্থা কি…

সুশান্তের তদ’ন্ত করার সময় মা’ * দ’ ক সংক্রান্ত একটি নতুন দিক উন্মুক্ত হয়। মা* দ’ ক সংক্রান্ত বিষয়ে যোগাযোগ থাকার জন্য অভি’ যুক্ত রিহা চক্রবর্তীকে 8ই সেপ্টেম্বর গ্রে’ প্তার হয়েছে, তার আগে গ্রে’ প্তার করা হয়েছিল তার ভাই সৌভিক ও স্যামুয়েল মিরান্ডাকে।

আদালত রিহার জামিন খা’রিজ করে দেওয়ায় রিহার ঠিকানা এখন জে’ল। জানা গিয়েছে রিহাকে যে জেলে স্থানান্তরিত করা হয়েছে সিনা বোরা সেই জে’ লেই আছেন। জেলে রিহা কোনও রকম কোনো সুবিধা পাচ্ছেন না বলেই জানা গিয়েছে।

জেলে রিহার দিন কাটছে খুবই ক’ ষ্টে। সংবাদ সূত্রে খবর রিহার কক্ষে কোনো সিলিং ফ্যান, খাট, মাদুর কিছুই নেই এমনকি তাকে বালিশ চাদর অব্দি দেওয়া হয় নি। ক’ষ্ট করে মেঝেতেই ঘুমোতে হচ্ছে রিহাকে।

জে’ ল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন আদালত সম্মতি দিলে তবেই একটি ফ্যানের ব্যবস্থা করা যাবে নচেৎ নয়। ক’ রো’ না ভাই’ রাস জনিত কারণে জেলের কয়ে’ দিদের ও মিলছে ভালো খাবার, রিহাকেও দেওয়া হয় হলুদ ও দুধ তাও এই কদিনে রিহার আই’ নজীবী অনেকবারই জামিনের জন্য আবেদন করেছেন কিন্তু আদালত তা খারিজ করে দিয়েছে।

রিহার ভাই শৌভিক, স্যামুয়েল মিরান্ডা এবং রান্নাকারীর জামিন ও একই ভাবে নামঞ্জুর করেছে আদালত।ওপর দিকে রিহার আই” নজীবী এনসি’ বির বি’ রুদ্ধে অভি’ যোগ এনেছেন মা* দ’ কের সঙ্গে যুক্ত থাকার বিষয়ে স্বীকারোক্তি জোর করে রিহাকে দিয়ে বলিয়ে নিয়েছে তদ’ ন্তকারী সংস্থার আধিকারিকরা।

আধিকারিকরা এখনো এবিষয় নিয়ে সংবাদমাধ্যমে কোনো কথা বলেন নি। রিহা তার জেরার সময় বেশ কিছুজনের নাম নিয়েছেন যারা মা* ‘দ’ ক যোগে যুক্ত, তাদের অন্যতম হলেন সারা আলী খান।

রিহার গ্রেপ্তা ’ রের পর শুরু হয়েছে রিহার জন্য জনতার জা’ স্টি ;স অভিযান। নেটিজেনদের একাংশ খুশি হলেও বেশ কিছুটা অংশ রিহাকে নির্দো’ ষ মনে করেন। রিহার পক্ষ নিয়ে কথা বলার জন্য বলিউডের নামজাদা বহু অভিনেত্রীই সামনে এগিয়ে আসছেন।

Reply