সম্পর্ক আরও খারাপের ইঙ্গিত, ভারতীয় কূটনীতিকের ভিসায় ‘না’ পাকিস্তানের

ভারতের সঙ্গে সম্পর্ক আরও তলানীতে ঠেকলো পাকিস্তানের। অন্তত পাক সরকারের তরফে যে সিদ্ধান্ত নেওয়া হল তাতে এমন ইঙ্গিত। ভিসা দেওয়া হলো না এক ভারতীয় কূটনীতিককে। এই নিয়ে এখন চর্চা তুঙ্গে। জানা গিয়েছে, ইসলামাবাদে ভারতীয় দূতাবাসের ভারপ্রাপ্ত ভারতীয় কূটনীতিক জয়ন্ত খোবরাগাদেকে ভিসা দিতে অস্বীকার করেছে পাকিস্তান সরকার। এই ঘটনা নিয়ে এখন জোর সমালোচনা শুরু হয়েছে।

একাধিক ইস্যুতেই ভারতের সঙ্গে পাকিস্তানের মতবিরোধ চলেছে প্রথম থেকেই। আন্তর্জাতিক মঞ্চে ভারতকে বিভিন্ন সময় বিপদে ফেলার চেষ্টা করেছে তারা কিন্তু ব্যর্থ হয়েছে। এদিকে কুলভূষণ যাদব মামলাতেও পাকিস্তান যে খুব একটা ভালো জায়গায় আছে তা নয়। তাই যেকোনো অন্য ইস্যুতে ভারতকে কোণঠাসা করতে বদ্ধপরিকর পাকিস্তান। এই প্রেক্ষিতেই ভারতীয় কূটনীতিকের ভিসা বাতিল করে ভারতকে চাপে ফেলার চেষ্টা করছে তারা, বিশেষজ্ঞদের মত এমনটাই।

সূত্রের খবর, গত জুন মাসে ইসলামাবাদে জয়ন্তকে নিয়োগের কথা জানিয়েছিল নয়াদিল্লি। কিন্তু সেই সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করে ভারতীয় কূটনীতিককে ভিসা দিতে অস্বীকার করেছে পাকিস্তান সরকার। এর আগে ভারতে পাকিস্তানের দূতাবাসের ২ আ’ধি’কা’রি’ককে চরবৃত্তির অভিযোগে আ’টক করা হয়েছিল। যদিও পাকিস্তান সেই অভিযোগ অস্বীকার করে।

অন্যদিকে, কুলভূষণ যাদব মামলায় ভারতীয় আইনজীবী নিয়োগের বিষয়টি কেউ পাত্তা দেয়নি তারা। উইকেট একাধিক ক্ষেত্রে ভারতের ওপর দোষ চাপিয়েছে ইমরান খান সরকার। এবারে ভিসা বাতিলের সিদ্ধান্ত ভারত-পাক সম্পর্ক আরো তলানিতে যাওয়ার অন্যতম কারণ হতে পারে।

Reply