করোনার সময় নার্সরাই ‘আমাদের দুর্গা’! ছবি পোস্ট করে বার্তা লকেটের

ভারতীয় জনতা পার্টির কাছে কোভিড যোদ্ধারাই হলেন আসল ভগবান, এমনটাই মন্তব্য করলেন লকেট চট্টোপাধ্যায়। আসন্ন শারদীয়া উৎসবের প্রাক্কালে তিনি জানালেন, নিজের জীবনের ঝুঁকি নিয়ে করোনার মোকাবিলা করে চলেছেন যে স্বাস্থ্যকর্মীরা, তাঁরাই বাস্তবের দশভূজা হিসেবে চিহ্নিত, বিজেপি দল তেমনটাই মনে করে।

শনিবার রাতে নিজের ফেসবুক পেজ থেকে একটি পোস্ট করেন রাজ্য বিজেপির অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ নেত্রী তথা হুগলি লোকসভা কেন্দ্রের সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায়। ওই পোস্টে তিনি একটি ছবি শেয়ার করেন যাতে দেখা যায় এক মহিলা স্বাস্থ্য কর্মী রোগীর চিকিৎসা করছেন। তাঁর আদ্যপান্ত পিপিই কিটে ঢাকা। রোগীর মুখে অক্সিজেন সরবরাহ করা হচ্ছে দেখে অনুমান করা যায়, তিনি করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত। কর্তব্যরত ওই মহিলা কর্মীর মুখ ঢাকা থাকলেও, চোখ দেখে মুখে লেগে থাকা হাসির খানিক আঁচ পাওয়া যায়। অর্থাৎ শত দায়িত্বের ভার কাঁধে নিয়েও তিনি হাসিমুখ বজায় রেখেছেন।

কিন্তু, ছবির বর্ণনা এখানেই শেষ হয় না। ওই কর্তব্যরত মহিলা কর্মীর চারপাশে দেখা যায়, দশটি হাতের ছবি বসানো হয়েছে, ঠিক যেন হিন্দু বাঙালির আরাধ্যা মা দুর্গার দশ হাত। তবে তাঁর দশ হাতে দশটি অস্ত্রের পরিবর্তে রয়েছে ওষুধ, ইঞ্জেকশন, স্টেথোস্কোপ ও আরো নানা চিকিৎসার সরঞ্জাম। এভাবেই করোনাযোদ্ধা ওই মহিলাকে ছবিতে বাস্তবের মা দুর্গা হিসেবে তুলে ধরা হয়েছে।

এককালীন বাংলা চলচ্চিত্র জগতের জনপ্রিয় অভিনেত্রী এবং বিজেপি সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায় এই ছবি শেয়ার করে তার সঙ্গে লিখেছেন, “আমাদের দুর্গা”। সেই সঙ্গে ছবিটি তিনি হোয়াটসঅ্যাপ থেকে সংগ্রহ করে শেয়ার করছেন বলেও জানিয়েছেন বিজেপি নেত্রী।


প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, লকেট চট্টোপাধ্যায়ের এই পোস্টে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রতি কটাক্ষ স্পষ্ট। রাজ্যের উন্নয়নের জন্য তাঁর নিরলস প্রচেষ্টাকে কুর্নিশ জানিয়ে তৃণমূল কংগ্রেসের সমর্থকগণ তাঁকে দশভূজা দুর্গার সঙ্গে তুলনা করে থাকেন। দুদিন আগেই তৃণমূলের তরুণ সমর্থন দেবাংশু ভট্টাচার্য মুখ্যমন্ত্রীকে উদ্দেশ্য করে “আমার দুর্গা আবার জিতবে, অসুর হারবে ফের” শিরোনামে কবিতাও লিখেছিলেন। সেই প্রেক্ষিতে লকেট চট্টোপাধ্যায়ের আজকের পোস্ট তাৎপর্যপূর্ণ।

অন্যদিকে এই ছবি টুইটারে শেয়ার করেছে অল ইন্ডিয়া মেডিকেল স্টুডেন্টস অ্যাসোসিয়েশন। সেখানেও করোনাকালে যেভাবে লড়াই করেছেন ডাক্তার, নার্সরা তাঁর জন্য তাঁদেরকে কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন নেটাগরিকরা।

Reply