কেকেআর ম্যাচে নজর কাড়লেন ‘স্টাইলভাই’ পশ্চিম পাঠক

কলকাতা বনাম হায়দরাবাদের আইপিএল ম্যাচে নজর কাড়লেন ‘রকস্টার’ আম্পায়ার পশ্চিম পাঠক। রবিবার আবু ধাবির বাইশ গজে মর্গ্যান-ওয়ার্নারদের মতো তারকারা থাকলেও সোশ্যাল মিডিয়ার চর্চার কেন্দ্রেও ‘স্টাইলভাই’ পশ্চিম।

এ দিন আবু ধাবির স্টেডিয়ামে ম্যাচ ছিল সানরাইজার্স হায়দরাবাদ বনাম কলকাতা নাইট রাইডার্সের। তবে দু’দলের ক্রিকেট তারকাদের পাশাপাশি সঙ্গী আম্পায়ার সুন্দরম রবিকে নিয়ে পশ্চিম মাঠে নামতেই চোখ ঘুরিয়ে দিয়েছেন অনেকের। কাঁধছা়ড়ানো কোঁকড়া চুল। চোখ ঢাকা রোদচশমায়। পশ্চিমের এহেন স্টাইলে রীতিমতো শোরগোল পড়ে গিয়েছে ক্রিকেটপ্রেমীদের জগতে।

আইপিএল তো বটেই, দেশীয় এমনকি আন্তর্জাতিক স্তরেও পশ্চিমের মতো হেয়ারস্টাইল বোধহয় আগে দেখা যায়নি। নেটিজেনরা অনেকেই বলতে শুরু করেছেন, ‘রকস্টার’ আম্পায়ার!

কে এই পশ্চিম পাঠক? চলতি আইপিএলে তাঁর প্রথম ম্যাচ হলেও এক দশকেরও বেশি সময় ধরে আম্পায়ারিং করছেন পশ্চিম। ঘরোয়া ক্রিকেটে তাঁকে দেখা গিয়েছে গত ২০০৯ সাল থেকে। এমনকি, দেশের মাটিতে ২টি টেস্ট এবং ৩টি একদিনের ম্যাচেও রিজার্ভ আম্পায়ার ছিলেন পশ্চিম। শুধুমাত্র দেশীয় স্তরেই নন, আন্তর্জাতিক ম্যাচেও আম্পায়ারিং করতে দেখা গিয়েছে পশ্চিমকে। ২০১২-তে মহিলাদের ২টি আন্তর্জাতিক ম্যাচে মাঠে নেমেছিলেন তিনি। আইপিএলেও আনকোরা নন। ’১৪ এবং ’১৫-র আইপিএল মিলিয়ে মোট ৪টি করে ম্যাচে অন-ফিল্ড আম্পায়ারিং করেছেন পশ্চিম।

এ দিনের আগেও লাইমলাইট কেড়েছিলেন পশ্চিম। প্রথম ভারতীয় আম্পায়ার হিসেবে মাঠে হেলমেট পরে। সালটা ২০১৫। বিজয় হাজারে টুর্নামেন্টে একটি ম্যাচে হেলমেটে মাথা ঢেকে মাঠে নেমেছিলেন তিনি। সেই সিদ্ধান্তের পিছনে যে অস্ট্রেলীয় ক্রিকেটার ফিল হিউজের মর্মান্তিক স্মৃতি রয়েছে, তা-ও জানিয়েছিলেন পশ্চিম। ২০১৪ সালে শন অ্যাবটের বাউন্সারে মাথায় আঘাত পেয়েছিলেন হিউজ। ঘটনার দু’দিন পরে হাসপাতালে মৃত্যু হয় তাঁর। অনেকের মতো সেই অভিশপ্ত দিনের কথা ভুলতে পারেননি পশ্চিম। তাঁর কথায়, ‘‘ফিল হিউজের এবং ইজরায়েলে এক আম্পায়ারের মৃত্যুর ঘটনার পরই প্রোটেক্টিভ গিয়ার পরে মাঠে নামার কথা চিন্তা করছিলাম। তবে নিশ্চিত ছিলাম না হেলমেট পরে আম্পায়ারিং করলে কী রকম লাগবে!’’

এ দিন অবশ্য সেই চিন্তা করতে হয়নি তাঁকে। মাঠে নামতেই ‘রকস্টার’ তকমা পেয়ে গিয়েছেন আম্পায়ার পশ্চিম পাঠক!

Reply