বাংলায় বিজেপির মুখ কে? মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিকল্প হিসেবে যা বললেন শাহ

বাংলায় বিজেপির মুখ কে? মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিকল্প মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী খুঁজতে নাকাল হতে হচ্ছে অমিত শাহদের। বাংলায় মিশন একুশের লড়াইয়ে ঝাঁপালেও এখনও পর্যন্ত মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী খুঁজে পাচ্ছে না। তার থেকেও বড় কথা বিজেপি ঠিক করতে পারেনি মুখ্যমন্ত্রী মুখ সামনে রেখে লড়াই করা উচিত হবে কি না!

কৈলাশের সঙ্গে ফারাক অমিত-কথায়
কিছুদিন আগে বাংলায় মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী স্থির করা নিয়ে যখন হইচই পড়ে গিয়েছিল, তখন বাংলার বিজেপি পর্যবেক্ষক কৈলাশ বিজয়বর্গীয় জানিয়েছিলেন, বিজেপি কোন ও মুখ্যমন্ত্রী মুখ সামনে রেখে বাংলায় লড়বে না। বাংলার নির্বাচনে মোদীকে সামনে রেখেই লড়াই হবে। জিতলে তারপর ঠিক হবে কে হবেন মুখ্যমন্ত্রী।

মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী প্রসঙ্গে অমিত শাহ
কিন্তু একই প্রশ্নে নিরুত্তর বিজেপির প্রাক্তন সর্বভারতীয় সভাপতি তথা বর্তমান কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। অমিত শাহ এই প্রশ্নের তাৎপর্যপূর্ণ উত্তর দিলেন। তিনি বলেন, মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী হতেও পারে। তবে বাংলার মানুষ তৃণমূলকে হটাতে চায়। আমাদের তাই লক্ষ্য হবে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকারকে ক্ষমতা থেকে সরানো।

বাংলার মুখ কে বিজেপির, ধন্দ
অমিতের মন্তব্যই স্পষ্ট করে দিয়েছে, এখনও পর্যন্ত বাংলার মুখ হিসেবে বিজেপি কাকে তুলে ধরবে, তা নিশ্চিত করে তুলতে পারেননি। আদৌ মুখ্যমন্ত্রী মুখকে সামনে রেখে বিজেপি এই লড়াই লড়বে কি না, তা নিয়েও ধন্দ। ফলে নানা নাম নিয়ে মাঝেমধ্যেই জল্পনা চলছে। আবার তা নিভে যাচ্ছে অচিরেই।

বুমেরাং হবে না ২০২১-এ, চিন্তায় বিজেপি
রাজনৈতিক মহলের মতে, বিজেপি এখন দোটানায় এই কারণেই যে, ধারেভারে মমতাকে টক্কর দেওয়ার মতো নেতা নেই বিজেপিতে। সে ক্ষেত্রে আগেভাগে মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী ঠিক করে দিলে তা বুমেরাং হতে পারে। আবার বিজেপিকে ভাবাচ্ছে কাউকে মুখ না করে নির্বাচনে গেলে গ্রহণযোগ্যতা কমে যেতে পারে।

অমিত শাহ ধীরে চলো নীতি নিচ্ছেন
মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী হিসেবে এই নিস্পৃহতা এবং সিদ্ধান্তহীনতা বিজেপির রক্তচাপ বাড়িয়ে দিচ্ছে ক্রমশ। কৈলাশের মতো সিদ্ধান্ত সোজাসাপ্টা না জানিয়ে অমিত শাহ ধীরে চলো নীতি নিচ্ছেন। তিনি জিইয়ে রেখেছেন সম্ভাবনা। এই অবস্থায় তৃণমূল কটাক্ষ করতে ছাড়ছে বিজেপিকে। তৃণমূলের কথায়, বাংলায় বিজেপির কোনও মুখ নেই!

Reply