দুর্নীতি রুখতে দেশজুড়ে স্বচ্ছ প্রশাসন তৈরির ডাক দিলেন প্রধানমন্ত্রী

দুর্নীতিকে দেশের উন্নয়নের পথে প্রধান বাধা হিসেবে চিহ্নিত করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। মঙ্গলবার “ন্যাশনাল কনফারেন্স ওন ভিজিলেন্স অ্যান্ড অ্যান্টি করাপসন” এর বৈঠকে অংশগ্রহণ করে ভার্চুয়াল মাধ্যমে বক্তব্য রেখেছেন তিনি। এই বৈঠকে অংশগ্রহণ করে তিনি বলেছেন, দুর্নীতি রুখতে স্বচ্ছ, দায়বদ্ধ প্রশাসন গড়ে তোলার আবশ্যকতা আছে। দুর্নীতি উন্নয়নের পথে বাধা দান করে। যার ফলে সমাজে বৈষম্য সৃষ্টি হয়।

এদিনের ভার্চুয়াল বৈঠকে বক্তব্য পেশ করার সময় প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, দুর্নীতি রুখতে স্বচ্ছ, দায়বদ্ধ এবং সাধারণ মানুষের কাছে উত্তর দিতে সক্ষম প্রশাসন গড়ে তুলতে হবে। তিনি আরো বলেছেন, দুর্নীতির কারণে উন্নয়নের ক্ষতি হওয়ার পাশাপাশি সামাজিক ভারসাম্য বিনষ্ট হয়। উল্লেখ্য, মঙ্গলবার ভারতের লৌহ মানব সর্দার বল্লভ ভাই প্যাটেলের জন্ম দিবস।

তাঁকে স্মরণ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, সরদার বল্লভ ভাই প্যাটেল ভারতের প্রশাসনিক ব্যবস্থার অন্যতম স্থপতি ছিলেন। সারাদেশ আজকের দিনে তার জন্ম দিবস উপলক্ষে অনুষ্ঠান পালন করছে। প্রধানমন্ত্রীর দাবি অনুযায়ী, ২০১৪ সালে দেশে মোদি রাজত্ব স্থাপিত হওয়ার পর থেকেই প্রশাসনিক, ব্যাংকিং, স্বাস্থ্য, শিক্ষা. কৃষি ও শ্রম-সহ একাধিক ক্ষেত্রে দুর্নীতি রুখতে তৎপর হয়েছে কেন্দ্র।

তিনি আরো বলেন, মোদি সরকার কার্যত দুর্নীতির বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতি গ্রহণ করেছে। যার ফলে দেশের গরীব মানুষের কাছে ১০০ শতাংশ সরকারি সুবিধা পৌঁছচ্ছে। দুর্নীতি, অর্থনৈতিক অপরাধ, মাদক, আর্থিক দুর্নীতি, সন্ত্রাসে অর্থের যোগান দেওয়ার মতো ঘটনাগুলিকে এক সূত্রে বেঁধে প্রধানমন্ত্রী বলেন, দেশে উন্নয়ন আনতে গেলে এই সকল অনৈতিক কার্যকলাপে প্রতি সততার সঙ্গে নজরদারি চালাতে হবে।

Reply