পাকিস্তানের মাটি খুঁড়ে উদ্ধার করা হল ১৩০০ বছরের পুরনো বিষ্ণু মন্দির

উত্তর-পশ্চিম পাকিস্তানের সোয়াত জেলার এখটি পর্বতে খুঁজে পাওয়া গেল ১৩০০ বছর আগে তৈরি হওয়া একটি হিন্দু মন্দির। পাক এবং ইতালিয়ান প্রত্নতাত্বিক বিশেষজ্ঞরা ওই মন্দিরটি আবিষ্কার করেছেন।

খাইবার পাখতুনখওয়া প্রত্নতত্ত্ব বিভাগের ফজলে খালিক জানিয়েছেন, আবিষ্কৃত মন্দিরটি হল ভগবান শ্রীবিষ্ণুর মন্দির। বারিকোট ঘুন্দাই খননের সময় মন্দিরটির খোঁজ পাওয়া গিয়েছে। তিনি জানিয়েছেন, মন্দিরটি প্রায় ১৩০০ বছর আগেকার হিন্দু শাহী আমলের মন্দির। সেই সময়ে হিন্দুরা এই মন্দিরটি তৈরি করেছিলেন।

হিন্দু শাহী হল একটি হিন্দু রাজবংশীয় সময়কাল যারা পাকিস্তান, আফগানিস্তান, কাবুল উপত্যকা এবং অধুনা উত্তর-পশ্চিম ভারতে রাজত্ব করত। বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন তাঁদের আমলেই হিন্দু মন্দিরটি তৈরি করা হয়েছিল। শুধু মন্দির নয়, মাটি খনন করে মন্দির সংলগ্ন এলাকার সেনানিবাস, প্রহরীদের আবাসের হদিশও পাওয়া গিয়েছে। এক্ষেত্রে অনুমান করা হচ্ছে সেই সময়ে মন্দিরে কড়া প্রহরায় নিযপুক্ত থাকতেন প্রহরীরা।

বিশেষজ্ঞরা মন্দির সংলগ্ন এলাকায় একটি পুকুরও পান, যা থেকে মনে করা যায় যে সেটি পুজো করা বা স্নানের কাজেও ব্যবহার করা হত। ইতালীয় প্রত্নতাত্বিকদের কথায়, এটি গান্ধারা সভ্যতার মন্দির, সোয়াত জেলায় এটি প্রথম আবিষ্কৃত এইধরণের মন্দির।

Reply