“সূর্যের সঙ্গে লড়াই করতে গেলে ঝলসে যাবেন” হুঙ্কার অভিষেকের

“দল ছেড়ে শুভেন্দু অধিকারী শনিবার দিন অমিত শাহের সভায় শনিবারই বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন। তিনি ওই সভায় দাবি করেন, আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূল হারবেই।

শুভেন্দুর দল বদলে হৈচৈ শুরু হয়েছে রাজ্য জুড়ে, এহেন অবস্থায় ডায়মন্ড হারবারের তৃণমূল সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় বললেন, কয়েকজন নেতা দল থেকে চলে গেলে দলে কোনও প্রভাব পড়বে না।

তিনিও আশাবাদী যে, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ই ফের বাংলায় ক্ষমতা দখল করবেন। বিরোধী পক্ষকে বরাবর নেতা মন্ত্রীরা কতাক্ষ করেন এ নতুন কিছু নয়, তবে সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরোধীকে কটাক্ষ করে পুরানো একটি ভিডিও খুব ভাইরাল হয়েছে।

এই ভিডিওটি অভিষেকের একটি জনসভার ভিডিও। শুভেন্দু বিজেপি যোগ দেওয়ায় পর অভিষেকের ওই আক্রমণাত্মক মন্তব্যের ভিডিওকেই তৃণমূল প্রচার চালানোর হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করতে সোশ্যাল মিডিয়ায় তৃণমূলের সমর্থনে এক পেজ থেকে নতুন করে পোস্ট করা হয়।

অনেকের মতে, অমিত শাহের রোড শো থেকে নজর ঘোরাতেই এই কৌশল করা হয়েছে। ভিডিওটি নভেম্বর মাসের এক সভার। ওই সভায় অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে সূর্যের সঙ্গে তুলনা করে বিরোধীদের বার্তা দিয়েছিলেন, “সূর্যের সঙ্গে ল’ড়াই করতে গেলে ঝলসে যাবেন। সে অমিত শাহ হোন কিংবা দিলীপ ঘোষ বা সিপিএমের সুজন চক্রবর্তী, যেই ল’ড়াই করতে আসবেন সেই ঝলসে যাবেন।”

বাংলা সফরে এসে অমিত শাহ মেদিনীপুরের কলেজ মাঠে বিশাল জনসভা করেন । ওই জনসভার মঞ্চ থেকে দলবদল-সহ একাধিক ইস্যুতে তিনি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে একহাত নিয়েছিলেন।

তিনি দাবি করেন, তৃণমূলের শেষের শুরু হয়ে গিয়েছে । এছাড়া আগামী নির্বাচনে তৃণমূলের ভরাডুবি হওয়ার আগাম বার্তা দেওয়ায় তারই পালটা হিসেবে তৃণমূল সমর্থকরা নতুন করে ভিডিওটি পোস্ট করে যেন বুঝিয়ে দিতে চাইলেন, তাঁরা অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় ও মমতার পাশেই আছেন এবং বিজেপি যেন লড়াই করার আগে আবার ভাবে।

Reply