আরও বেকায়দায় নোবেল! গায়কের বিরুদ্ধে CID তদন্তের নির্দেশ ঢাকা আদালতের

বাংলাদেশের সঙ্গীতশিল্পী মাইনুল আহসান নোবেলের বিরুদ্ধে CID তদন্তের নির্দেশ দিল ঢাকা আদালত। ঢাকার সাইবার ট্রাইব্যুনালের বিচারক মোহাম্মদ আসসামছ জগলুল হোসেন বুধবার এই নির্দেশ দেন। ওই ট্রাইব্যুনালের বেঞ্চ সহকারী শামীম আল মামুন জানিয়েছেন, আগামী ৬ জুলাইয়ের মধ্যে তদন্তের রিপোর্ট জমা দিতে হবে আদালতে।

ফেসবুকে মানহানিকর বক্তব্য রাখার অভিযোগে নোবেলের বিরুদ্ধে গত সোমবার মামলা করেন গীতিকার, সুরকার ও সঙ্গীত পরিচালক ইথুন বাবু। নোবেলের বিরুদ্ধে হাতিরঝিল থানায় জিডি করেন তিনি। সম্প্রতি নিজের ফেসবুক পেজ ‘নোবেল ম্যান’ থেকে দেওয়া একটি পোস্টে ওই পোস্টে নোবেল লেখেন, ‘ইথুন বাবু একটা চোর। অন্যের গান নিজের নামে চালায় দিসে।’

 

ইথুন বাবুর দাবি করেন, ‘দীর্ঘদিন ধরে আমি সঙ্গীত চর্চা করছি। গুণীদের সঙ্গে যেমন কাজ করেছি, তেমনি তরুণদের সঙ্গেও কাজ করেছি। কেউ কোনো দিন এমন কথা বলতে পারেনি। নোবেল আমাকে সে ধরনের কথা বলেছে! আমি নাকি চোর! আমার মেয়ে ইঞ্জিনিয়ারিং পড়েছে। ছেলে এমবিএ করছে। পরিবারের কাছে, আমার কর্মক্ষেত্রে এবং সর্বোপরি দেশের মানুষের কাছে এভাবে নোবেল আমার সম্মানহানি করবে, তা মেনে নিতে পারি না।’ তিনি বলেন, ‘নোবেলের পোস্টের কারণে সবার কাছে আমার সম্মানহানি হয়েছে। তাই আমি এর সুষ্ঠু বিচারের জন্য আইনের আশ্রয় নিয়েছি।’

 

এই বাংলার একটি বেসরকারি টেলিভিশনে একটি সঙ্গীত প্রতিযোগিতাতে জনপ্রিয়তা পান নোবেল। কিন্তু তিনি ফেসবুকে নানা বিতর্কিত পোস্ট নিয়ে সমালোচিত হচ্ছিলেন তিনি। বিশেষ করে দেশের প্রবীণ শিল্পীদের নিয়ে নোবেলের একাধিক মন্তব্যে ওঠে বিতর্কের ঢেউ। এবার ইথুনবাবুকে নিয়ে তিনি যে কথা বলেন তারপরেই তাঁর বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করা হয়।

Reply