Tuesday , September 21 2021
Breaking News

ফাইনাল শুরুর প্রাক্কালে ভারতের টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ যাত্রা ফিরে দেখা

স্নেহা পাল, কলকাতা২৪x৭ঃ আজ ইংল্যান্ডের সাউদাম্পটনে ঐতিহাসিক ওয়ার্ল্ড টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ(WTC) ফাইনালে মুখোমুখি হচ্ছে ভারত এবং নিউজিল্যান্ড। প্রথম সংস্করণের টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ জিততে ১৮-২২ তারিখ পর্যন্ত মাঠে নিজেদের সবটা দিয়ে লড়াই করবে বিরাট(Virat Kohli) এবং কেনের(Kane Williamson) ছেলেরা। ফাইনাল শুরুর আগে দুই দলের প্রস্তুতির যদি তুল্যমূল্য বিচার করা হয়, তবে ভারতের চেয়ে খানিক এগিয়ে রয়েছে কিউয়িরা। হাইভোল্টেজ ফাইনালের আগে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে দুটি টেস্ট ম্যাচ খেলেছে তাঁরা এবং সেটি ১-০ ফলে জিতেও নিয়েছে।

অপরদিকে বিরাটরা প্রায় তিন মাস আগে ঘরের মাঠে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে টেস্ট ম্যাচ খেলেছিলেন এবং টাইটানিকের শহরে ফাইনালের প্রস্তুতি হিসেবে শুধু আন্তঃস্কোয়াড ম্যাচ খেলেছেন। তবে প্রস্তুতির সময় শেষ, এখন শুধুই মাঠে নিজেদের সেরাটা দেওয়ার পালা। আজ টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনাল শুরুর প্রাক্কালে তাই এই টুর্নামেন্টে ভারতের যাত্রা একটু ফিরে দেখা যাক।

· ভারত বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজ, ২০১৯

টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে ভারতের যাত্রা শুরু হয়েছিল ২০১৯ সালে ক্যারিবিয়ান দ্বীপে। সেখানে তাঁরা ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে দুটি টেস্ট ম্যাচ খেলেছিলেন এবং প্রত্যাশামতোই সেই দুটি ম্যাচই ভারত বড় ব্যবধানে জিতে নিয়েছিল। প্রথম টেস্ট ম্যাচে জেসন হোল্ডার(Jason Holder), সিমরন হেটমায়াররা(Shimron Hetmyer) পাহাড়সম ৩১৮ রানে পরাজিত হয়েছিল। দ্বিতীয় টেস্ট ম্যাচে তাঁরা কিছুটা ঘুরে দাঁড়ালেও, জয় ছিনিয়ে নিতে পারেননি। সেই ম্যাচটি ওয়েস্ট ইন্ডিজ ২৫৭ রানে হেরেছিল।

· ভারত বনাম দক্ষিণ আফ্রিকা, ২০১৯

ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরের পর ভারত মুখোমুখি হয়েছিল অপেক্ষাকৃত কঠিন প্রতিপক্ষ দক্ষিণ আফ্রিকার। তবে ঘরের মাঠে সেই সিরিজ জিততেও ভারতের কোনও অসুবিধা হয়নি। দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে সিরিজেই সীমিত ওভারের ক্রিকেটে ভারতীয় দলের ওপেনার রোহিত শর্মাকে(Rohit Sharma) টেস্ট ম্যাচে প্রথম ওপেন করার সুযোগ দেওয়া হয়েছিল এবং হিটম্যান সেই সুযোগকে দু’হাতে লুফে নিয়েছিলেন। তিন ম্যাচের সেই সিরিজে ১৩২.২৫ গড়ে ৫২৯ রান করেছিলেন তিনি। এছাড়া ভারতের আরেক ওপেনার ময়ঙ্ক আগরওয়ালও(Mayank Agarwal) দুর্দান্ত পারফর্ম করেছিলেন। তিনটি টেস্ট ম্যাচে ময়ঙ্ক সংগ্রহ করেছিলেন ৩৪০ রান। ভারত সেই সিরিজ ৩-০ ফলে জিতে নিয়েছিল।

· ভারত বনাম বাংলাদেশ, ২০১৯

দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে সিরিজ জেতার পর ঘরের মাঠে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে দু’ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলতে নেমেছিল ভারত। তার মধ্যে একটি আবার ছিল ঐতিহাসিক পিঙ্ক বল টেস্ট। দু’ম্যাচের সেই সিরিজে প্রত্যাশামতোই ভারত বাংলাদেশকে হেলায় হারিয়ে দিয়েছিল। দুটি ম্যাচই এক ইনিংস-সহ যথাক্রমে ১৩০ রান এবং ৪৬ রানে জিতেছিল বিরাটরা।

· ভারত বনাম নিউজিল্যান্ড, ২০২০

টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে ভারতের বিজয়রথ থেমেছিল নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজে। নিউজিল্যান্ডে গিয়ে কিউয়িদের হারানো যে সহজ হবে না তা ভারত বেশ জানত। তবে আশা করা হয়েছিল দু’ম্যাচের টেস্ট সিরিজ জিততে না পারলেও অন্তত ড্র করে ফিরবে বিরাট কোহলির ছেলেরা। কিন্তু তা হয়নি। প্রথম ম্যাচ ১০ উইকেটে এবং দ্বিতীয় ম্যাচ ৭ উইকেটে জিতে নিয়েছিল কেন উইলিয়ামসনরা(Kane Williamson)।

· ভারত বনাম অস্ট্রেলিয়া, ২০২০

কোভিডের কারণে এক দীর্ঘ বিরতির পর মরুশহরে আইপিএল খেলে ভারত অস্ট্রেলিয়া সফরে গিয়েছিল। সেখানে প্রথম ম্যাচেই বড় ধাক্কা খায় তাঁরা। ম্যাচের দ্বিতীয় ইনিংসে মাত্র ৩৬ রানে অল আউট হয়ে গিয়েছিল ভারতীয় দল। সেই ম্যাচ অজিরা জিতে নিয়েছিল। প্রথম ম্যাচের পর বিরাট কোহলিও(Virat Kohli) দেশে ফিরে এসেছিলেন। অধিনায়কত্বের দায়িত্ব পড়ে আজিঙ্কা রাহানের ওপর(Ajinkya Rahane)। এরপর দ্বিতীয় ম্যাচটি সবাইকে অবাক করে দিয়ে ৮ উইকেটে জিতে নেয় ভারত। তৃতীয় ম্যাচে আবার হারের সন্মুখীন হতে পারত রাহানের দল। কিন্তু সেখানে হার আর জয়ের মধ্যে প্রাচীর হয়ে দাঁড়ান হনুমা বিহারি(Hanuma Vihari) এবং রবিচন্দ্রণ অশ্বিন(Ravichandran Ashwin)। সেই ম্যাচটি ড্র করে ভারত। এরপর গ্যাবায় বুমরাহ(Jasprit Bumrah), জাদেজা(Ravindra Jadeja), অশ্বিন(Ravichandran Ashwin) ছাড়া খেলতে নেমে চতুর্থ টেস্ট ম্যাচও জিতে নেয় ভারত। সৌজন্যে ভারতের তরুণ ব্রিগেড, ওয়াশিংটন সুন্দর(Washington Sundar), শার্দূল ঠাকুর(Shardul Thakur) এবং ঋষভ পন্ত(Rishabh Pant)।

· ভারত বনাম ইংল্যান্ড, ২০২১

টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনালে স্থান করে নিতে ঘরের মাঠে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজে ভালো পারফর্ম করতেই হতো ভারতকে। কিন্তু চেন্নাইয়ে প্রথম ম্যাচেই হারের সন্মুখীন হয় ভারতীয় দল। সেখান থেকে পরবর্তী তিন ম্যাচে ঘুরে দাঁড়ায় বিরাট কোহলির(Virat Kohli) ছেলেরা। পরের তিনটি টেস্ট ম্যাচ জিতে টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনালে নিজেদের স্থান পাকা করে নেয় ভারত।

About A..

Check Also

ট্রফিতে চুম্বন মেসির।

দুঃখ পেয়েছি বহু বার, তবে জানতাম একদিন দেশের হয়ে ট্রফি জিতবই, বললেন মেসি

এই মুহূর্তটাই দেখতে চাইছিল বিশ্ব। এই মুহূর্তটাই দেখতে চাইছিলেন তাঁর অগণিত অনুরাগীরা। লিয়োনেল মেসির হাতে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *